মানবতার জীবন যাপন করছেন বিভিন্ন বাজারের নরসুন্দররা-

মানবতার জীবন যাপন করছেন বিভিন্ন বাজারের নরসুন্দররা-

জি এম মাছুম বিল্লাহ শ্যামনগর প্রতিনিধিঃ-
করোনা ভাইরাসের কারণে সারা পৃথিবী যখন থমথমে, বাজারের দোকান গুলো অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা হয়েছে সরকারিভাবে। নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যের দাম বেড়েই চলেছে।একশ্রেণীর মানুষের দিন কাটছে
অনাহারে-অর্ধাহারে।যারা প্রতিদিন সকালে দোকান খুলে বসতেন ক্ষুর, কাঁউচি নিয়ে।প্রতিদিন সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত কাজ করে যে আয় হতো সেটা দিয়ে চলতো তাদের সংসার,ছেলে মেয়ের পড়ার খরচ, ঔষধ খরচ ইত্যাদি। দীর্ঘদিন ধরে মুন্সিগঞ্জ বাজারে কাজ করা নরসুন্দর পতিরাম বাবুর কাছে বর্তমান অবস্থা সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন, আমরা যারা এই কাজ করে দিন যাপন করি, তাদের নুন আনতে পান্তা ফুরায়, তার উপর এই মহামারী করোনাভাইরাস আমাদের উপর জেঁকে বসেছে,আজ ২০ দীর্ঘদিন ধরে দোকানপাট বন্ধ করে না খাওয়ার উপক্রম হয়েছে আমাদের। আরেক নরসুন্দর আনারুল বলেন, ছোটবেলা থেকে অতি দরিদ্রতার মধ্যে এই কাজ শিখে কোনরকম ভাবে সংসার চলছিল, বর্তমানে করোনা ভাইরাসের কারণে মা-বাবা, ভাই-বোন, স্ত্রী-কন্যা, নিয়ে অত্যন্ত মানবেতর জীবনযাপন করছি।মাঝেমধ্যে দুই একজনের ফোন পেয়ে তাদের বাড়ি যেয়ে কাজ করে কোনরকম ভাবে দিন অতিবাহিত করছি। পরিস্থিতি এভাবে চলতে থাকলে আমাদের দুঃখের শেষ থাকবে না।বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে জানা গেছে,শ্যামনগর উপজেলায় বিভিন্ন বাজারে ২০০টির মত দোকানে ৪৫০ জনের মত মানুষ নরসুন্দরের কাজ করে। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক একজন নরসুন্দর বলেন,আমাদের কাছ থেকে ভোটার আইডি কার্ডের ফটোকপি নিয়ে গেছে কিন্তু আজ পর্যন্ত কোনো সহযোগিতা পায়নি। তারা বলেন উপজেলা প্রশাসনের কাছে আমাদের দাবি একটা তালিকার মাধ্যমে যেন কিছু সরকারি ত্রাণের ব্যবস্থা করেন।এ বিষয়ে বুড়িগোয়ালিনী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ভবতোষ কুমার মন্ডল বলেন, নরসুন্দরদের জন্য আলাদা কোনো বাজেট না থাকলেও আমার পরিষদের আওতায় যারা আছেন তাদের কমবেশি সহযোগিতা করা হয়েছে। তিনি আরো বলেন, শুধু নরসুন্দর নয় আমার নির্বাচনী এলাকায় যদি কেউ এ ধরনের সমস্যায় থাকে বা আছে আমাকে জানালে আমি তাৎক্ষণিক সেখানে প্রয়োজনীয় সামগ্রী পৌঁছে দেবো। এ বিষয়ে শ্যামনগর উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান প্রভাষক সাইদুজ্জামান সাঈদের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,সরকারিভাবে যে সমস্ত সহযোগিতা আসছে সেগুলো উপজেলার সবগুলো ইউনিয়নে সুষ্ঠ বন্টন করে দেয়া হচ্ছে। আমরা উপজেলা প্রশাসন শ্যামনগর উপজেলার সবগুলো ইউনিয়নের যেয়ে গরীব, অসহায়, দুস্থ মানুষের মাঝে ত্রাণ বিতরণ করছি।নরসুন্দরদের দাবি সরকারিভাবে যেন তাদের কিছু সহযোগিতা করা হয়। উপজেলা প্রশাসনের কাছে সহযোগিতা কামনা করেন তারা।

সংবাদ শেয়ার করুন

themesbazartvsite-01713478536