মুখের ভিতরে ঘা(আলসার) হলে করণীয়। Darpon TV

মুখের ভিতরে ঘা(আলসার) হলে করণীয়। Darpon TV

মহসিন মুন্সী, ব্যুরো চীফ।

মুখের ভিতর ঘা বা আলসার খুব পরিচিত ও কমন একটি রোগ। কখনও কামড় খেলে, শরীরে ভিটামিনের ঘাটতিতে, কখনও দুর্ঘটনার জন্য আবার কখনো বা ঠান্ডা থেকে এই আলসারের সমস্যা হতে পারে। মুখের ভিতরে আলসার হলে প্রথমত খাওয়া-দাওয়া করতে সমস্যা হয়, আবার অনেক সময় কথা বলতেও সমস্যা হতে পারে। আলসার খুব বড় আকার ধারণ করলে আর সহজে না সারলে চিকিৎসকের শরণাপন্ন হতে হবে। এ ছাড়া ঘরোয়া কিছু টোটকা মানলে আলসার থেকে মুক্তি পাওয়া সম্ভব হতেও পারে।

১) বেকিং সোডা: বেকিং সোডা পিএইচ ব্যালেন্স ঠিক রাখতে সাহায্য করে। যে কোনও জ্বালাভাব কমায়। আলসার হলে যেহেতু জ্বালাভাব থাকে অনেক বেশি, তাই বেকিং সোডার ব্যবহার করা যেতে পারে। বেকিং সোডা ও পানির একটি ঘন মিশ্রণ বানিয়ে সেটি আলসারে লাগিয়ে কিছুক্ষণ রেখে পরিষ্কার পানিতে মুখ ধুয়ে নিলে জ্বালাভাব দূর হবে। এছাড়াও হাফ কাপ পানিতে ১ চা চামচ বেকিং সোডা দিয়ে একটা মিশ্রণ বানিয়ে তা দিয়ে ১৫-৩০ সেকেন্ড কুলকুচি করলেও আলসার কমতে পারে। এ ক্ষেত্রে কয়েক ঘণ্টা পর পর এভাবে কুলকুচি করলে ধীরে ধীরে আলসার কমে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

২) নারকেল তেল: ত্বক ভালো রাখতে ও রান্নার ক্ষেত্রে নারকেল তেলের জুড়ি মেলা ভার। কিন্তু অনেকেই হয়তো জানেন না এই তেল আলসার ভালো করতে সাহায্য করে। নারকেল তেলে অ্যান্টি-মাইক্রোবায়াল গুণ রয়েছে বলে ব্যাকটেরিয়া দূর হয়। এর অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি উপাদান জ্বালাভাব দূর করে ও ব্যথা কমায়। এক-দু ফোঁটা নারকেল তেল আলসারে লাগিয়ে কিছুক্ষণ রেখে দিলে ধীরে ধীরে আলসার কমে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

৩) অ্যালুম পাউডার: এতে একটি উপাদান থাকে, যা আলসার শুকাতে সাহায্য করে। সামান্য পানির সঙ্গে অ্যালুম পাউডার মিশিয়ে একটি মিশ্রণ তৈরি করতে হবে। তারপর আলসারে লাগিয়ে কয়েক মিনিট রেখে দিতে হবে।

৪) মধু: মধুতে অ্যান্টি-মাইক্রোবায়াল উপাদান থাকে যা নারকেল তেলের মতোই জ্বালাভাব, ব্যথা ও লালচে ভাব কমায়। আলসারে এক ফোঁটা মধু লাগিয়ে রাখলেও আলসার ভালো হয়ে যেতে পারে।

৫) লবণ পানি : এসব ছাড়াও আলসার হলে হালকা গরম পানিতে পরিমাণ মত লবণ মিশিয়ে তা দিয়ে গার্গল করতে হবে। এতে আলসার শুকিয়ে যেতে পারে এবং ব্যথা থেকে মুক্তি মিলতে পারে।

তবে ডাক্তার দেখিয়ে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করাটাই সর্বোত্তম।

সংবাদ শেয়ার করুন

সাইফুল ইসলাম,কক্সবাজার প্রতিনিধি :

কক্সবাজারের মহেশখালীর কালামারছড়া এলাকায় অভিযান চালিয়ে অস্ত্রসহ দুজন সন্ত্রাসীকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব -১৫।

বুধবার (১৯ জানুয়ারি) রাত সাড়ে ২ টার দিকে র‍্যাব -১৫ একটি টিম মহেশখালীর কালামারছড়ায় এঅভিযান পরিচালনা করে।

র‍্যাব -১৫ এর অতিঃ পুলিশ সুপার সিনিঃ সহকারী পরিচালক ( ল ‘ এন্ড মিডিয়া ) অধিনায়ক মোঃ আবু সালাম চৌধুরী জানান, মহেশখালীর কালামারছড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের রাস্তার উপর কয়েকজন সন্ত্রাসী অপরাধমূলক কর্মকান্ড করার জন্য অবস্থান করছে, এমন সংবাদের ভিত্তিতে অভিযানিক দল অভিযানে গেলে র‍্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে পালানোর চেষ্টাকালে খায়রুল আলম ( ২৫ )ও ছৈয়দুল করিম ( ৩৩ )কে আটক করে।এসময় এই সিন্ডিকেটের ২/৩ জন সদস্য কৌশলে পালিয়ে যায়।

পরে আটককৃতদের কাছ থেকে ৪ রাউন্ড তাজা কার্তুজ,২ টি একনলা বন্দুক ও ২ টি ওয়ানশুটারগান উদ্ধার করা হয়।

তিনি আরও জানান:আটককৃতরা দীর্ঘদিন ধরে সমাজে অস্হিতিশীল পরিবেশ সৃষ্টি করতে সন্ত্রাস ও অপরাধমূলক কর্মকাণ্ড চালিয়ে আসছিল।

গ্রেপ্তারকৃত ও পলাতক আসামীদের বিরুদ্ধে অস্ত্র আইনে মামলা রুজু করে পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা নিতে মহেশখালী থানায় অভিযোগ দেয়া হয়েছে।

মহেশখালীতে অস্ত্রসহ দুই সন্ত্রাসী গ্রেপ্তার।

themesbazartvsite-01713478536