ফকিরহাটে বসতবাড়ি জবরদখলের হুমকি আদালতের স্মরনাপন্ন হয়েছেন ভুক্তভোগী

ফকিরহাটে বসতবাড়ি জবরদখলের হুমকি আদালতের স্মরনাপন্ন হয়েছেন ভুক্তভোগী

ফকিরহাট (বাগেরহাট) প্রতিনিধিঃ

ফকিরহাটে বসতবাড়ীসহ জমি দখলের হুমকির মুখে আদালতের স্মরণাপন্ন হয়েছে ভুক্তভোগী।ক্রয়কৃত জমিতে দেড়যুগ ধরে বসবাস করার পর এমন পরিস্থিতিতে আতংকগ্রস্থ হয়ে তিনি ফৌজদারী কার্যবিধি ১৪৪ ধারায় বাগেরহাটের বিগ্গঃ অতিঃ ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে একটি আবেদনের মাধ্যমে আশ্রয় নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন উপজেলার ব্রাম্মনরাকদিয়া গ্রামের শেখ আঃ গফফার।

সূত্রে প্রকাশ,শেখ আঃ গফফার ফকিরহাটের আট্টাকী গ্রামের আমেনা বেগমের কাছ থেকে এবং তার মৃত্যুর পর তার দুই ছেলে আনোয়ার ও আতিয়ারের কাছ থেকে কবলা মুলে রেজিঃ দলিলে জমি কিনে বসতবাড়ী নির্মাণ করে নিজে বসত করে আসছেন। ওই জমিতে বর্তমানে তার পাঁচটি ভাড়াটিয়া আছে এবং বর্তমান জরিপে ওই জমি তার নামে বি,আর,এস খতিয়ানে রেকর্ডও হয়েছে।

জমি বিক্রেতা আনোয়ার হোসেন ও বাদল শেখ,সোহাগ শেখ গত ১৩সেপ্টেম্বর সকাল দশটার দিকে বাধার মুখে তপশীলি জমি জবরদখলে ব্যর্থ হইয়া শাসিয়ে যায় যে, সময় সুযোগ মত উহা দখল করা হবে।

ভুক্তভোগী শেখ আঃ গফফার ফকিরহাট উপজেলার ব্রাম্মন রাকদিয়া গ্রামের এজার উদ্দিনের ছেলে। ক্রয়ের পর বিশ্বরোড সংলগ্ন ওই জমিতেই তিনি বসতবাড়ি গড়ে বসবাস করে আসছেন।

সংবাদ শেয়ার করুন

জি এম মাছুম বিল্লাহ শ্যামনগর প্রতিনিধি: গত ৩১শে আগস্ট সোমবার আনুমানিক রাত ১২:২৪ মিনিটে কলবাড়ি বাজারে ভাই ভাই বস্ত্রালয় নামীয় দোকান থেকে দুর্ধর্ষ চুরি উদ্ধার হয়নি মালামাল। মামলার বিবরনিতে দেখা যায় দোকানের ক্যাশ বাক্স থেকে তালা ভেঙ্গে নগদ ৮ লক্ষ ৯৩ হাজার টাকা ও দোকানের মালামাল ছড়ানো-ছিটানো ৯৪৫০০ টাকার শাড়ি লুঙ্গি অন্যান্য মালামালসহ মোট ৯,৮৭,৫০০ নগদ টাকাসহ মালামাল চুরি হয়।এ বিষয়ে বাদী হয়ে শ্যামনগর থানায় এজাহার দায়ের করেন ভাই ভাই বস্ত্রলয় সত্ত্বাধিকারী সত্ত্বাধিকারী বলাই কৃষ্ণ মন্ডল যার মামলা নং ৩৪৫/২০২০।মামলায় অজ্ঞাতনামা দুই তিন জনসহ রাজনকে আসামি করা হয়। মামলার একদিন পরে আসামি রাজন গাজী (২২) পিতা-মৃত রব্বানী গাজীকে গ্রেফতার করে বিজ্ঞ আদালতে প্রেরণ করে ৭ সাতদিনের রিমান্ড আবেদনের বিপরীতে একদিনের রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর হয়।শ্যামনগর থানার সাব-ইন্সপেক্টর মোঃ: রইচ উদ্দিন বলেন, ধৃত আসামি খুব চালাক প্রকৃতির একদিনের রিমান্ডে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করা হলেও তার কাছ থেকে কোন প্রকার তথ্য বের করা যায়নি।মামলার পরবর্তী পদক্ষেপ সম্পর্কে জানতে চাইলে তিনি বলেন,

অন্যান্য আসামিদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।সিসিটিভির ফুটেজ ধারণকৃত তথ্য পর্যালোচনা করে গ্রেফতারকৃত আসামিকে চুরির ঘটনা সত্যতা যাচাই করে। ভাই ভাই বস্ত্রালয়ের স্বত্বাধিকারী বলাই কৃষ্ণ মণ্ডল বলেন গত ২০দিনে উল্লেখিত চুরির ঘটনায় মালামাল ও অর্থ উদ্ধার হয়নি। পারিবারিক পারিপার্শ্বিক থেকে নিরব হুমকি ধামকি চলছে এ বিষয়ে ভাই ভাই বস্ত্রালয় কর্তৃপক্ষের কাছে তথ্য জেনে জানা গেছে তারা মানবতার জীবন যাপন করছে। সত্যতা যাচাইয়ে এলাকাবাসীর পক্ষে মানুষের মধ্যে গুঞ্জন চলছে, এই এলাকায় বিগত সময়ে চিংড়ি ঘের, দোকান চুরির সাথে জড়িত রাজন গাজী এ ধরনের ঘটোনায় এলাকাবাসী জানান উল্লেখিত ঘটনায় এলাকাবাসী সুষ্ঠু তদন্ত ও মালামাল উদ্ধারের জন্য জোর তদন্তের দাবি জানান।

শ্যামনগরের কলবাড়ি বাজারে দুর্ধর্ষ চুরির ঘটনায় ২০দিনেও উদ্ধার হয়নি চুরিকৃত টাকা ও মালামাল।

themesbazartvsite-01713478536