মাতারবাড়ীতে জলবদ্ধাতার নিরসনে ২০ ফুট ড্রেনের ব্যাবস্থা

মাতারবাড়ীতে জলবদ্ধাতার নিরসনে ২০ ফুট ড্রেনের ব্যাবস্থা

দেলোয়ার হোসেইন(মহেশখালী কক্সবাজার)
প্রতিনিধি:
মহেশখালী উপজেলার অন্তর্গত মাতারবাড়ী ইউনিয়নের


৪নং ওয়ার্ডের সিএজি স্টেশনে পানি নিষ্কাশন ব্যবস্থা না করে অ-পরিকল্পিত নিউ মার্কেট তৈরী করায় চলতি বর্ষামৌসুমে জলবদ্ধাতার সৃষ্টি হয়েছিল।

লাইল্যাঘোনা,সাতঘরপাড়া,সিএনজি স্টেশন,পুলিশ ক্যাম্প সহ অত্র ৪ নং ওয়ার্ডের বিভিন্ন এলাকায়।

স্থানীয় এলাকাবাসী সূত্রে জানাযায়ঃ-

চলতি বর্ষার মৌসুমে ও অন্যান্য সময় পানি নিষ্কাশনে চলমান বর্ষামৌসুমের মতো জলাবদ্ধতা আগে কখনাে এলাকা বাসী দেখেনি কিন্তু বিগত সময়ে এলাকায় অপরিকল্পিত বিভিন্ন স্থাপনা তৈরি হওয়ায়জলাবদ্ধতায়
নিদারুণ সমস্যার সম্মুক্ষিণ পোহাতে হচ্ছিল অত্র
এলাকা বাসীর।

জলাবদ্ধতা নিরসনে সি.এন.জি.স্টেশন ও লাইল্যাঘােনা
সংযােগ স্থলে কালভার্টের পুননির্মাণ কাজ চলছে।

পানি নিষ্কাশনের জন্য কালভার্টের দক্ষিণ দিকে প্রায় ১০০ ফুট ড্রেন ব্যবস্থা অত্যান্ত জরুরী হয়ে পড়েছে।

মাতারবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক,মহেশখালী উপজেলার সাবেক রাজপথ কাপানো ছাত্রলীগ নেতা ও বর্তমান মাতারবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক এসএম আবু হায়দার,ইউপি সদস্য ও ৪ নং ওয়ার্ড আওয়ামী
লীগ সভাপতি এম জাহেদুল ইসলাম চৌধুরী,উপজেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক আবু ছালেহ ,সাবেক ছাত্রলীগ সভাপতি কাইছারুল ইসলাম,আবদুল্লাহ আল কাইয়ুম,ছাত্রনেতা মােস্তফা কামাল,মােহাম্মদ ইয়াছিন সহ স্থানীয় লােকের প্রত্যক্ষ পর্যবেক্ষণেঃ-

মহেশখালী উপজেলার রাজপথ কাপানো সাবেক ছাত্রলীগ নেতা বর্তমান মাতারবাড়ী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এস এম আবু হায়দার
এলাকার মানুষের দাবির প্রেক্ষিতে তাৎক্ষণিকভাবে ২০ফুট ড্রেনের ব্যাবস্থা করেন।

পরবর্তীতে ৮০ ফুট ড্রেনের কাজ কিছু দিনের মধ্যে শেষ করার হবে বলে স্থানীয় এলাকা বাসীদের কে আশ্বাস দেন ।

এলাকার সাধারণ মানুষ চলতি বর্ষা মৌসুমে জলাবদ্ধতা থেকে রেহাই পাবে বলে আশা প্রকাশ করেন ।

এই সময়,এম আবু হায়দার মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশে সাংসদ আলহাজ্ব আশেক উল্লাহ রফিক এর নেতৃত্বে চলমান উন্নয়ন কর্মকান্ডে বাস্তবায়নে সকলের সহযােগিতা কামনা করেন ।

সংবাদ শেয়ার করুন

themesbazartvsite-01713478536